সব ধরনের ক্রিকেট থেকে ইরফান পাঠানের  বিদায়

0
564

ভারতীয় অলরাউন্ডার ইরফান পাঠান সব ধরনের ক্রিকেটকে বিদায় জানালেন। ভারতের জার্সিতে বাঁহাতি এই পেস অলরাউন্ডার ২৯টি টেস্ট, ১২০টি ওয়ানডে এবং ২৪টি টি-টোয়েন্টি খেলেছেন। তার মোট উইকেটের সংখ্যা ৩০১।

মাত্র ১৯ বছর বয়সে ২০০৩ সালের ডিসেম্বরে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে অ্যাডিলেড টেস্ট দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক হয় ইরফানের। জীবনের প্রথম ম্যাচে ১৬০ রান খরচ করে সাবেক অজি ওপেনার ম্যাথু হেইডেনের উইকেট নেন তিনি। তবে ২০০৪ সালে পাকিস্তান সফর দিয়ে তিনি দলে নিয়মিত হন।

২০০৬ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে টেস্ট হ্যাটট্রিক পাওয়া ছিল ইরফানের ক্যারিয়ারের অন্যতম সেরা পারফরম্যান্স। এরপর ২০০৭ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে ম্যাচ সেরা নির্বাচিতও হয়েছিলেন তিনি।

ভারতের ইতিহাসের অন্যতম সেরা এই অলরাউন্ডার দলের প্রয়োজনে ওপেনিং এবং তিন নম্বরেও ব্যাটিং করেছেন। ২৯ টেস্টের ক্যারিয়ারে ব্যাট হাতে তার গড় ৩১.৫৭। এই সময়ে ৪০ ইনিংসে তার ব্যাট থেকে ১টি সেঞ্চুরি ও ৬টি ফিফটিও এসেছিল। ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টিতে তার ব্যাটিং যথাক্রমে ২৩.৩৯ এবং ২৪.৫৭।

ভারতের হয়ে ২০০৭-০৮ মৌসুমের অস্ট্রেলিয়া সফরে ইরফান ক্যারিয়ার সেরা পারফরম্যান্স করেন। সেবার পার্থে অজিদের বিপক্ষে ভারতের ঐতিহাসিক জয়ে ম্যাচ সেরা নির্বাচিত হন তিনি।

২০০০-এর দশকের শেষদিকে পারফরম্যান্সে কিছুটা ভাটা পড়ে ইরফানের। যা দলে তার অবস্থান নড়বড়ে করে দেয়। ২০০৮ সালে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে নিজের শেষ টেস্ট ম্যাচটি খেলেন তিনি। কিন্তু স্বল্প দৈর্ঘ্যের ক্রিকেটেও তেমন ভালো পারফরম্যান্স দেখাতে পারেননি। ২০১২ সালে নিজের শেষ ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি ম্যাচও খেলেন ইরফান।

জম্মু ও কাশ্মীরের হয়ে পেশাদার ঘরোয়া ক্রিকেট ক্যারিয়ার শেষ করা ৩৫ বছর বয়সী ইরফান ২০১৭ সালে সর্বশেষ আইপিএল খেলেছেন।

মেহেরিনা কামাল

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here